চুল পড়া কমাতে কার্যকারী সমাধান

2017-10-03 রূপচর্চা

স্বাভাবিকভাবেই পরিবেশ দূষণ এবং আবহাওয়া পরিবর্তনের ফলে বর্তমান কালে নারী-পুরুষ উভয়ের মধ্যে চুল পড়া সমস্যা প্রকট আকার ধারণ করছে। নির্দিষ্ট একটি বয়স অতিবাহিত করার পর নারী অথবা পুরুষ উভয়ের চুল পড়া সমস্যা দেখা দিচ্ছে,

আসুন আজকে আমরা জানব কি করে এই সমস্যা প্রতিরোধ করা যায় 

ক টি  সাধারণ নিয়ম  মানলে এ সমস্যা প্রতিরোধ করা সম্ভব

১। নিয়মিত চুলে তেল মাসাজ করতে হবে ২০/২৫ মিনিত।

২।নিয়মিত শ্যাম্পু দিয়ে মাথা পরিষ্কার রাখতে হবে, কারণ মাথার ত্বকে   ছত্রাক থাকলে

ছত্রাক জনিত কারণে চুল পরবে।

৩। নিয়মিত সবুজ শাক সবজির সমারোহ রাখতে হবে প্রতিদিনের খাবারে

৪। খাবারে নিয়মিত প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার রাখতে হবে।

৫। নিয়মিত প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে।

৬।কোন কারণে এসব ভিটামিনের অভাব দেখা দিলে ডাক্তারের প।রামর্শ অনুযায়ী  ভিটামিন এ, বি ও সি ট্যাবলেট খেতে হবে। 

উল্লেখিত কার্যনীতি ছাড়াও আরও তিনটি পদক্ষেপ গ্রহণের মাধ্যমেই সমস্যার সমাধান হবে।

১। তিলের তেল দিয়ে মাথায় দিলে তা  চামড়ার ভেতরে blood circulation বাড়িয়ে  রক্ত চলাচল সঠিক ভাবে হয় ফলে চুল পড়া বন্ধ হয়ে যাবে

২। নাম্বার চুলের যেকোন রকমের শ্যাম্পুসপ্তাহের অন্তত ২/৩ বার ব্যবহার করতে হবে। শ্যাম্পু করার সময়ম্যাসাজ করতে হবে এবং এই শ্যাম্পু করার পূর্বে অবশ্যই ডিমের সাদা অংশ সামান্য লেবুর রস মিশিয়ে চুলের গোড়ায় লাগিয়ে ৩০ মিনিট পর ঠান্ডা পানি দিয়ে ভালোভাবে চুল ধুয়ে ফেলতে হবে এতে করে মাথার চামড়ার শুষ্ক ভাব দূর হবে ত্বক মসৃণ হবে এবং প্রাকৃতিক কন্ডিশনার এর কাজ করবে ডিমের সাদা অংশ এবং লেবুর রস । এই পদ্ধতি অবলম্বনে শতকরা ৯০ ভাগ চুল পড়া কমে যাবে।

৩। জলপাইয়ের তেল চুলে লাগিয়ে একটি চুলের ক্যাপ পড়ে ১ ঘন্টা পর শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন এবং কিনতে পাওয়া যায় চুলে ব্যবহার উপযোগী ই ট্যাবলেট মাথার চামড়াই লাগিয়ে  ১২ ঘন্টা পর চুল ধুয়ে ফেলুন চুল পড়া কমে যাবে।৯৫ ভাগ। পদ্ধতি গুলো এক টানা দুইমাস নিয়মিতভাবে চর্চা করলে নিশ্চিতভাবে আপনার চুল পড়া সমস্যা কেটে যাবে।



Similar Post You May Like