স্থায়ী ভাবে ফর্সা হবার উপায়

2017-10-05 রূপচর্চা

স্থায়ীভাবে ফর্সা হতে চান, তাহলে আসুন জেনে নেই কি করে স্থায়ী ফর্সা ত্বক পাওয়া সম্ভব। অনেকে মনে করেন আজকাল বাজারে যে সকল ফর্সা হওয়ার ক্রিম পাওয়া যায় এগুলো ব্যবহার করে বোধহয় ফর্সা হওয়া সম্ভব, এটা ভুল ধারনা। কিন্তু স্থায়ীভাবে ফর্সা হওয়া  কখনোই সম্ভব নয় ক্রিম লাগিয়ে। আপনি যদি চান সারা জীবনের জন্য পরিশ্রম করে একবারে একটা সুন্দর ত্বক তৈরি করতে  তাহলে অবশ্যই আপনার শরীরের ভেতরে মেলানিন পরিবর্তন করতে হবে, মানুষ কালো হবে কি ফর্সা হবে তা নির্ভর করে শরীরের ভিতরের  মেলানিনের পরিমাণ এর উপর শরীরে মেলানিন কম তারা ফর্সা হয় আর যা শরীরের মেলানিন বেশি সে বাহ্যিকভাবে দেখতে কালো হয়। তাই সারা জীবনের জন্য ফর্সা ত্বক পেতে হলে শরীরের ভিতর মেলানিনের পরিমাণ কে কমিয়ে ফেলার যে কার্যক্রম গুলো আছে সেগুলো পর্যায়ক্রমে অনুসরণ করতে হবে বিভিন্ন রকমের খাবার এবং ভেষজ উপাদান গ্রহণের মাধ্যমে মেলানিনের পরিমাণ কমিয়ে ফেলা যায় এর পরিমাণ কমিয়ে ফেললে। আপনি স্থায়ীভাবে ফর্সা, উজ্জ্ব্‌ লাবন্যময় ত্বকে আশা করতে পারেন।

তাহলে আসুন আমরা জেনে নেই কি করে শরীরের ভিতর মেলালেন কমানো সম্ভব

১।  প্রতিদিন সকালে খালি পেটে নিম পাতা বেটে রস খেতে পারেন এটা কষ্টকর মনে হলে প্রতিদিন হাফ লিটার পানিতে একশটি পরিমাণ নিম পাতা সেদ্ধ করে সেই পানি ঠান্ডা করে এক মাস নিয়মিত পান করবেন। এতে করে আপনার শরীরের ভেতরে মেলালিন কমে যাবে আপনার ত্বক বাহ্যিক ভাবে ফর্সা দেখাবে।

২।প্রতিদিন সকালে কাঁচা হলুদ বেটে এর রস এক গ্লাস পানিতে মিশিয়ে খেয়ে ফেলুন এক টানা একমাস খালি পেটে খেলে আপনার শরীরের ভেতরের মেলানিনের পরিমাণ কমে যাবে আপনি হয়ে উঠবেন ফর্সা ।

৩।রাতে শোবার আগে এক গ্লাস দুধ এবং তাতে ২/৩  টুকরো হলুদ ১০মিনিট ফুটিয়ে ঠাণ্ডা করে খেয়ে ফেলুন এক টানা একমাস এটা করলে আপনার শরীরের ভেতরের মেলালিন কমে যাবে ফর্সা দেখাবে

৪। যারা শহরে বসবাস করেন তাদের জন্য নিম পাতা সংগ্রহ কঠিন মনে হতে পারে, তারা নিমপাতার পরিবর্তে সকালে একটি করে করলার জুস খেতে পারেন। এতে নিম পাতার মতোই উপকার পাবেন শরীরের মেলানিন কমাতে এই পদ্ধতিও একটি কার্যকরী উপায়। এক টানা এক মাস এ পদ্ধতি অবলম্বন করলে আপনি অবশ্যই ফর্সা হবেন।

৫। রাতে চিরতা দুই গ্লাস পানিতে ভিজিয়ে রাখুন সকাল বেলা খালি পেটে সেই পানি পান করুন এক টানা এক মাস এই পদ্ধতিতে শরীরের মেলানিন কার্যকরীভাবে কমে যাবে।

৬।খালি পেটে প্রতিদিন সকালে ১ গ্লাস গরম পানি এবং সাথে এক চামচ পুদিনা পাতার রস মিশিয়ে খেয়ে ফেলুন সাথে এক চামচ পরিমাণ মধুও মিশিয়ে নিতে পারেন এটাও ভাল কাজে দেবে।

bilinews



Similar Post You May Like